অপরাধসারাদেশ

কুষ্টিয়ায় প্রেমিকাকে ডেকে এনে বন্ধুদের নিয়ে গণধর্ষণ

ইনভেস্টিগেশন রিপোর্ট : কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ডেকে নিয়ে এক তরুণীকে ৫ বন্ধু মিলে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় শুক্রবার দুপুরে কুষ্টিয়ার কুমারখালী থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে ওই তরুণী।

এ ঘটনায় রাসেল (৩০) নামের এক যুবককে আটক করেছে কুমারখালী থানা পুলিশ। আটককৃত রাসেল কুমারখালীর শিলাইদহ ইউনিয়নের মির্জাপুর এলাকার আশরাফ আলীর ছেলে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, কুমারখালীর শিলাইদহ ইউনিয়নের কল্যাণপুরের এক তরুণীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিলো মির্জাপুর গ্রামের জালাল শেখের ছেলে জয় (১৯) এর। গত ৮ জুলাই বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তার প্রেমিকাকে ডেকে নিয়ে এসে খুনকার তলা নামক স্থান থেকে ইঞ্জিনচালিত ভ্যানযোগে কামারপাড়া চরে কলাবাগানে নিয়ে যায়।

কল্যাণপুর গ্রামের মৃত কামরুদ্দিনের ছেলে মামুন (২৪), আশরাফ আলীর ছেলে রাসেল (৩০), বাদশাহ’র ছেলে নাসিম (২০) ও হানিফ প্রামাণিকের ছেলে নান্নুসহ (৪০) ৫ জন ধর্ষণ করার পর তাকে অসুস্থ অবস্থায় ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে ধর্ষকদের পরিবারের চাপে ওই তরুণী পালিয়ে ঢাকা চলে যাবার কারণে মামলা করতে বিলম্ব হয়েছে বলে এজাহারে উল্লেখ করে।

শুক্রবার দুপুরে ওই তরুণী নিজে বাদী হয়ে কুমারখালী থানায় স্বশরীরে এসে মামলা দায়ের করে।

এ ব্যাপারে কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মজিবুর রহমান জানান, গত ৮ তারিখের গ্যাং রেপের বিষয়টি তিনি জানার পর কোনভাবেই বাদীকে খুঁজে পাচ্ছিলেন না। এ কারণে ব্যবস্থা নিতে পারেননি। বাদী থানায় গিয়ে অভিযোগ দেয়ার পর মামলা এন্ট্রি হয়েছে এবং রাসেল নামের একজন আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

পিএনএস/এএ

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button