সারাদেশ

ময়লার ড্রেনে ভাসছে ১০০০-৫০০ টাকার নোট,জানা গেল রহস্য

ইনভেস্টিগেশন রিপোর্ট :
২৩ আগস্ট: ২০২০
প্রকাশের সময়: ভোর: ১৬:৪৬
২৩ আগস্ট: ২০২০
আপডেট: ভোর: ১৬:৫০

রাজশাহীতে ড্রেনে ভেসে যাওয়া টাকা কুড়াচ্ছেন অনেক মানুষ। ড্রেনের ময়লা পানিতে ভেসে যাওয়া টাকা পাচ্ছেন তারা। সেখানে উৎসুক মানুষের ভিড় জমে গেছে। তাদের কেউ পাচ্ছেন ৫০০ টাকার নোট, কেউ পাচ্ছেন ১০০ টাকা, কেউ পাচ্ছেন ২০, ১০ কিংবা ৫ টাকার নোট।

ঘটনাটি ঘটছে শনিবার (২২ আগস্ট) দুপুরে রাজশাহী রেলওয়ে অফিসার্স মেস ভবনের সামনে। তবে টাকা পাওয়া লোকের সংখ্যা খুব কম। বেশিরভাগই উৎসুক জনতা। তবে পুরো শহরে এই নিয়ে হৈচৈ বিরাজ করে।

তবে ফেসবুকে খবর ছড়িয়ে পড়ে, এগুলো দুর্নীতি করে জমানো টাকা। ভয়ে ড্রেনে ফেলে দেওয়া হয়েছে। এ খবর শুনে পু’লিশ ও গোয়েন্দা সংস্থার সদস্যরাও ড্রেনের কাছে ছুটে যান। পরে তারা টাকার রহস্য খুঁজে পান।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, টাকাগুলো রাজশাহী সড়ক পরিবহন গ্রুপের। সেগুলো পুরোনো কাগজপত্রের ভেতর ছিল। নগরীর শিরোইল এলাকায় সড়ক পরিবহন গ্রুপের কার্যালয়। শনিবার দুপুরে সেখান থেকে কাগজের সঙ্গে খেয়াল না করে টাকাগুলোও ফেলে দেওয়া হয়েছিল।

রাজশাহী সড়ক পরিবহন গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক মতিউল হক টিটো বলেন, আমরা খুব বিব্রতকর অবস্থায় পড়ে গেছি। ভাবতেই পারিনি পুরোনো কাগজের ভেতর টাকা থাকতে পারে। তিনি বলেন, কাগজগুলো ৮/১০ বছর আগের। পচে গেছে। পোড়ানোর উপায় নেই। তাই ড্রেনে ফেলে দেওয়া হয়। পরে ড্রেনে টাকা পাওয়ার খবর শুনে আমরাও সেখানে যাই। তারপর ঘটনা দেখি।

তিনি বলেন, সব মিলিয়ে দুই-তিন হাজার টাকা থাকতে পারে। কিন্তু খবর ছড়িয়েছে অনেক টাকা পাওয়া গেছে।

নগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিবারণ চন্দ্র বর্মণ জানান, খবর পেয়ে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। প্রথমে টাকা কোথা থেকে এল তা নিয়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। পরে এর রহস্য জানা যায়।

“ইনভেস্টিগেশন নিউজ বিডি”

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button