আন্তর্জাতিক

পশ্চিম তীর থেকে ইহুদি বসতি সরানোর আদেশ ইসরায়েলের সর্বোচ্চ আদালতের

ইনভেস্টিগেশন নিউজ বিডি :
শনিবার : ২৯ আগস্ট ২০২০
প্রকাশের সময় : ০১:৪৯ এএম
১৪ ভাদ্র ১৪২৭
০৯ মুহাররম
১৪৪২ হিজরী
অনলাইন সংস্করণ

ফিলিস্তিনিদের ব্যক্তি মালিকানাধীন জমি দখল করে পশ্চিম তীরে যেসব ইহুদি বসতি গড়ে উঠেছে সেগুলো সরিয়ে ফেলার আদেশ দিয়েছে ইসরায়েলের সুপ্রিম কোর্ট।

বৃহস্পতিবার ক্ষতিগ্রস্ত ফিলিস্তিনিদের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ২০১৮ সালে জেলা আদালতের দেওয়া রায়কে বাতিল করে নতুন এই রায় দেন ইসরায়েলের সর্বোচ্চ আদালত। খবর আলজাজিরার।

খবরে বলা হয়, ফিলিস্তিনিরা পশ্চিম তীরকে তাদের ভবিষ্যৎ রাষ্ট্রের অংশ হিসেবেই চায়। ওখানে ৩০ লাখ ফিলিস্তিনি বসবাস করেন। তাদের মধ্যে বসতি গড়ে তুলেছে প্রায় সাড়ে ৪ লাখ ইসরায়েলি।

জানা গেছে, জেলা আদালত যখন ফিলিস্তিনিদের জমির ওপর বসতি স্থাপনকারীদের আইনগত অধিকার দিয়েছিলেন, তখন তাদের এটা জানা ছিল না যে, মূল মানচিত্রে এসব জমি ফিলিস্তিনিদের হিসেবে দেখানো হয়েছে। জর্ডান উপত্যকায় একটি পাহাড়ের চূড়ায় ২০ বছর আগে বসতি স্থাপন করা ৪০টি পরিবার রয়েছে, যাদের বেশিরভাগই ফিলিস্তিনিদের মালিকানাধীন প্লটে বাস করে।

তাদের দাবি, তারা সেখানে বাস করার জন্য ইসরায়েলি কর্তৃপক্ষের অনুমোদন পেয়েছে। তবে সুপ্রিম কোর্ট বলেছে, ইসরায়েলি কর্তৃপক্ষ কাজটি অন্যায্যভাবে করেছে এবং তারা ফিলিস্তিনিদের ন্যায্য মালিকানাকে উপেক্ষা করেছে।

প্রসঙ্গত, সংযুক্ত আরব আমিরাতের সঙ্গে সম্পর্কের পর ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী তার পূর্বপরিকল্পিত পশ্চিম তীরে বসতি দখল স্থগিত রাখার ঘোষণা দেন। তবে একই সঙ্গে তিনি ইসরায়েলি সংবাদমাধ্যমগুলোতে বলেন যে, বসতি নির্মাণ স্থগিত করা হয়েছে, কিন্তু বাতিল করা হয়নি। এরপরই বৃহস্পতিবার এ রায় দিল ইসরায়েলি সর্বোচ্চ আদালত।

সুত্র-পিএনএস/এএ

“ইনভেস্টিগেশন নিউজ বিডি”

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button